A+
A-

শারীরিক শিক্ষা | নবম-দশম শ্রেণী | অধ্যায়-০১ | সৃজনশীল প্রশ্নোত্তর-০১

শারীরিক শিক্ষা | নবম-দশম শ্রেণী | অধ্যায় ০১ | সৃজনশীল প্রশ্নোত্তর ০১

∎ প্রশ্ন ১: রায়হানের দাদু রায়হানের স্কুলে গিয়ে খেলার মাঠ, শরীরচর্চার শিক্ষক এবং এদের ব্যায়াম ও খেলাধুলা দেখে উৎফুল্ল হলো। স্কুল থেকে আসার পর রায়হান তার দাদুকে শারীরিক শিক্ষার আরো কয়েকটি বিষয় যেমন- ক্রীড়া সরঞ্জাম, ইনডোর গেমস, আউটডোর গেমস, আন্তঃস্কুল ক্রীড়া প্রতিযোগিতা বিষয়ে বর্ণনা করল। রায়হানের দাদু পরবর্তী কয়েকটি দিন স্কুলে গিয়ে পর্যবেক্ষণ করল যে, রায়হানের স্কুলের প্রায় সব শিক্ষার্থীই সুস্থ।

ক. শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের প্রথম কাজ কী? 
খ. শিক্ষা জীবনব্যাপী বিস্তৃত- ব্যাখ্যা কর।
গ. রায়হানদের স্কুলে শরীর ও মন গঠনে কোন কর্মসূচি চালু আছে? উদ্দীপকের আলোকে ব্যাখ্যা কর। 
ঘ. উপরে বর্ণিত কর্মসূচির মাধ্যমে শিক্ষার্থীদের “সুস্থ দেহ ও সুস্থ মন” গঠন সম্ভব- ব্যাখ্যা কর।

➲ ১ নং প্রশ্নের উত্তর 

ক. শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের প্রথম কাজ হলো শিশু শিক্ষার্থীর ব্যক্তিগত বিকাশ সাধন।

খ. শিক্ষা জীবনব্যাপী বিস্তৃত। 
ব্যাখ্যা : শিক্ষা সম্পর্কে বিভিন্ন পণ্ডিত ব্যক্তি নানাভাবে ব্যাখ্যা প্রদান করেছেন যা বিভিন্ন অবস্থার সাথে সংশ্লিষ্ট। শিক্ষা শুধুমাত্র বুদ্ধিবৃত্তিক বিকাশ নয়, ব্যক্তির শারীরিক, সামাজিক, আবেগিক ও অন্যান্য দিকের ও সুষম বিকাশ সাধন করে। শিক্ষা ব্যক্তিজীবনের কোনো একটি নির্দিষ্ট সময়েই ঘটে না অর্থাৎ শিক্ষা জীবনব্যাপী বিস্তৃত। কারণ শিক্ষা শুধুমাত্র বিদ্যালয়ের মধ্যে সীমাবদ্ধ নয়, শিক্ষা অর্জিত হয় পরিবারে, সমাজে, খেলার মাঠে এবং সর্বত্র।

গ. রায়হানদের স্কুলে শিক্ষার্থীদের শরীর ও মন গঠনে যে যে কর্মসূচি চালু আছে তা শারীরিক শিক্ষার আন্তঃক্রীড়াসূচি ও আন্তঃক্রীড়া সূচির অন্তর্ভুক্ত। তাদের স্কুলে পড়াশোনার পাশাপাশি বিভিন্ন খেলাধুলার যেমন ইনডোর গেমস্ যা অন্তঃক্রীড়া সূচির অন্তর্ভুক্ত এবং আন্তঃস্কুলক্রীড়া প্রতিযোগিতা যা আন্তঃক্রীড়া সূচির অন্তর্ভুক্ত আয়োজন করা হয়ে থাকে। স্কুলের চারি দেওয়ালের মধ্যে যে বা নিজেদের মধ্যে যে সমস্ত খেলাধুলা প্রতিযোগিতা আকারে হয় তাকে ইন্ট্রামুরাল স্পোর্টস বা আন্তঃক্রীড়া সূচি বলে। আবার যে সমস্ত খেলাধুলা বা প্রতিযোগিতা এক স্কুলের সাথে অন্য স্কুল বা এক প্রতিষ্ঠানের সাথে অন্য প্রতিষ্ঠানের মধ্যে অনুষ্ঠিত হয় তাক এক্সট্রামুরাল বা আন্তঃক্রীড়াসূচি বলে। এসব প্রতিযোগিতার মাধ্যমে শিক্ষার্থীদের শারীরিক ও মানসিক বিকাশ সাধিত হয়।

অতএব, উপরোক্ত আলোচনার প্রেক্ষিতে বলা যায় যে, শরীর ও মন গঠনের জন্য রায়হানদের স্কুলে শারীরিক শিক্ষার অন্তঃক্রীড়া সূচি ও আন্তঃক্রীড়া সূচির অন্তর্ভুক্ত খেলাধুলার কর্মসূচি চালু আছে।


ঘ. উপরের বর্ণিত কর্মসূচির মাধ্যমে অর্থাৎ শারীরিক শিক্ষার কর্মসূচির মাধ্যমে শিক্ষার্থীদের সুস্থদেহ ও সুস্থ মন গঠন সম্ভব। 
ব্যাখ্যা : শারীরিক শিক্ষার ক্ষেত্রে সুস্থদেহে সুন্দর মন একটি পরিপূর্ণ ও পূর্ণাঙ্গ উক্তি। এটি একটি প্রাচীন মতবাদও বটে। কিন্তু প্রাচীন হলেও সর্বযুগে প্রমাণিত হয়েছে যে, সুস্থদেহ অর্জিত হলে সুন্দর মন বিকশিত হয়। আমাদের দেহ ও মন একটি অপরটির সাথে আন্তঃসম্পর্কযুক্ত। একটির সুস্থতা ব্যতীত অন্যটির সুস্থতা সম্ভব নয়। আমাদের বেঁচে থাকার জন্য দরকার সুস্থ ও স্বাভাবিক দেহ। দেহ সুস্থ না থাকলে কোনো কাজেই উৎসাহ সৃষ্টি হয় না। কিন্তু খেলাধুলার মাধ্যমে সুস্থদেহ অর্জন করতে পারলে কাজে সক্ষমতা ও কর্মস্পৃহা তৈরী হয়। শরীর সুস্থ থাকলে সকল কাজে মন বসানো সহজ হয়। সুস্থ দেহে মন প্রফুল্ল থাকে। আর প্রফুল্ল মনে মানুষ যেকোনো কর্মকান্ডে অনায়াসে অংশগ্রহণ করতে পারে। উপরে বর্ণিত কর্মসূচি অনুযায়ী রায়হানের স্কুলের শিক্ষার্থীরা নিয়মিত খেলাধুলায় অংশগ্রহণ করে। খেলাধুলার মাধ্যমে তারা সুস্থদেহ অর্জন করে ফলে সবকাজে তাদের সক্ষমতা ও কর্মস্পৃহা তৈরী হয়। খেলাধুলার কারণে তাদের শরীর সুস্থ থাকে। এতে পড়াশুনায় তারা মনোযোগী হয় এবং সুস্থদেহ অর্জন করার কারণে তাদের মনও প্রফুল্ল থাকে। আর প্রফুল্ল মনে অনায়াসে তারা পারিবারিক ও সামাজিক যেকোনো কর্মকান্ডে অংশগ্রহণে উৎসাহিত হয়। অর্থাৎ তাদের দেহ ও মন দুটোই সুস্থ থাকে।

অতএব, উপরোক্ত আলোচনার পরিপ্রেক্ষিতে বলা যায় যে, শারীরিক শিক্ষার কর্মসূচির মাধ্যমে শিক্ষার্থীদের সুস্থ দেহ ও সুস্থ মন গঠন সম্ভব।

7 মন্তব্যসমূহ

  1. 3rd অধ্যায়ের সৃজনশীল দেন

    উত্তরমুছুন
  2. শারীরিক শিক্ষা স্বাস্থ্য 3rdঅধ্যায়ের সৃজনশীল 1এর উত্তর দেন।

    উত্তরমুছুন
  3. নবমের সৃজনশীল ২ কোথায়
    😡

    উত্তরমুছুন
  4. ১০ম শারীরিক শিক্ষা ১ ম অদ্ধায় সৃজনশীল প্রশ্ন নং ২ উত্তর

    উত্তরমুছুন

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

নবীনতর পূর্বতন